টিকা নিয়েই জ্ঞান হারালেন, অবশেষে মৃত্যু

করোনা প্রতিরোধ টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার পর মা'রা গেছেন এক ব্যক্তি। মৃ'ত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৪৫ বছর। তিনি একজন চক্ষু বিশেষজ্ঞের গাড়ি চালক ছিলেন। মঙ্গলবার (৯ মার্চ) ভারতের মহারাষ্ট্রে এ ঘটনা ঘটে। তবে মৃ'ত্যুর কারণ এখনো অজানা বলে খবর প্রকাশ করেছেন ভারতীয় গণমাধ্যম।

গণমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, মৃ'ত ব্যক্তির নাম সুখদেব কিরদাত। মঙ্গলবার ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার ১৫ মিনিটের মধ্যে জ্ঞান হারান তিনি। তার কিছুক্ষণ পর চিকিৎসকরা তাকে মৃ'ত ঘোষণা করেন। মৃ'ত্যুর কারণ জানতে তার মর'দেহ ময়নাতদ'ন্তে পাঠানো হয়েছে। গত ২৮ জানুয়ারি করোনার প্রথম টিকা নিয়েছিলেন তিনি।

স্থানীয় হাসপা'তালে ডাক্তার কে আর কারাত বলেন, ‘প্রথম করোনার টিকা নেওয়ার পর তখন কোনো সমস্যা হয়নি তার। টিকা দেওয়ার আগে তার সম্পূর্ণ চেক-আপ করা হয়েছিল। তবে তার রক্তচাপের সমস্যা ছিল। অনেক বছর ধরেই এ সমস্যায় ভুগছিলেন তিনি। কিন্তু মঙ্গলবার রক্তচাপ এবং শরীরে অক্সিজেনের পরিমাণ একেবারেই স্বাভা'বিক ছিল।’

ভারতীয় নাগরিকদের জন্য পর্যা'প্ত টিকার ব্যবস্থা করেছে সরকার। দেশটির কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন গত সোমবার জানিয়েছেন, করোনাভাইরাস মোকাবেলায় টিকা কর্মসূচিতে কোনো রকম ঘাটতি হবে না। ভারতে ‘কোভ্যাক্সিন’ ও ‘কোভিশিল্ড’ টিকা দেওয়া হচ্ছে। এরই মধ্যে ২৯ লাখ মানুষ টিকা নেওয়ার জন্য নাম নিবন্ধন করেছেন।

সূত্র: নিউজ১৮ বাংলা