টানা ৫০ দিন জামাআতে নামাজ পড়ে সাইকেল পেল শিশু আব্দুল্লাহ

সাত বছরের শিশু আব্দুল্লাহ। অ'সাধারণ এক প্রতিভা। শুধু পুরস্কারই জিতে নেয়নি, জয় করেছে সব শ্রেণি-পেশার মানুষের হৃদয়। এ অল্প বয়সেই টানা ৫০ দিন পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ জামাআতের সঙ্গে আ'দায় করেছে। বড়দের সঙ্গে শিশু আব্দুল্লাহও পুরস্কার হিসেবে জিতে নিয়েছেন একটি বাইসাইকেল।

শুধু তাই নয়, মসজিদ কমিটি আয়োজিত প্রতিযোগিতা ও স্লোগান- ‘এসো বন্ধু নামাজ পড়ি, কুরআন দিয়ে জীবন গড়ি’ স্লোগান স্বার্থক করে তুলেছেন। কারণ ছোট্ট আব্দুল্লাহ যে বাবার সঙ্গে নিয়মিত মসজিদে এসে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ জামআতের সঙ্গে পড়েছে।

বিশি'ষ্ট ইসলামিক স্কলার ও দাঈ আব্দুল হাই মুহাম্মা'দ ছাইফুল্লাহ তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এমনই একটি উৎসাহ ও অনুপ্রেরণামূলক পোস্ট তুলে ধরেছেন। তার পোস্টটি হুবহু তুলে ধ’রা হলো-

চমৎকার একটি মাহফিলে অ'সাধারণ কিছু মুহূর্ত।

টানা ৪০ দিনে কারও দুই ওয়াক্ত কারও পাঁচ ওয়াক্ত মিস হলেও সাত বছরের শিশু আব্দুল্লাহ টানা ৫০ দিন এক ওয়াক্ত জামাত মিস করেনি।

তার আব্বা অনুভূ'ত ি বলতে গিয়ে তার মায়ের ভুমিকাকে এ ক্ষেত্রে মূল বলেছেন। উৎসাহিত করতে সাইকেল প্রদান করেছে মাহফিল কমিটি।

আমর'াও আমা'দের এলাকায় এভাবে সালাতে উৎসাহিত করতে পুরস্কার দিতে পারি, মাহফিল আয়োজক কমিটিও নিজেদের প্রোগ্রামের সাথে এরূপ গঠনমূলক কার্যক্রম নিতে পারেন।

আব্দুল্লাহর মা পারলে আপনারও পারা উচিত প্রিয় সন্তানের মায়েরা! অন্তত আমা'দের সন্তানের জন্য নামাজি বানাতে নিজেরাই উদ্যোগী 'হতে পারি, নাকি?

উল্লেখ্য, কু'ষ্টিয়া জে’লার কুমারখালীতে একটি ইসলামি প্রতিযোগিতায় ‘জামাআতের সঙ্গে নামাজ পড়া’র আয়োজনে অংশগ্রহণকারীদের জন্য চারটি সাইকেলসহ অনেক পুরস্কারের আয়োজন করে। সে অনুষ্ঠানে মাওলানা আব্দুল হাই মুহাম্মা'দ সাইফুল্লাহ প্রতিযোগীদের মাঝে সাইকেলসহ অন্যান্য পুরস্কার প্রদান করেন।