বিকাশে ভুল করে আসা ৫০ হাজার টাকা ফেরত দিলেন নাহিদ

ভুল করে 'বিকাশ নম্বরে আসা ৫০ হাজার টাকা ফেরত দিয়ে সততার অনন্য দৃ'ষ্টান্ত স্থাপন করেছেন নাহিদুল ইসলাম আলম নামের এক যুবক। তিনি নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজে’লার সদর ইউনিয়নের তারাকান্দা গ্রামের মো. আজিজুল হক ভূইয়ার ছেলে।

গত ১৭ মার্চ বুধবার সন্ধ্যার পর নাহিদের ব্যক্তিগত 'বিকাশ নম্বরে ২৫ হাজার করে দুই বারে ৫০ হাজার টাকা আসে। কিন্তু ওই টাকা কোথায় থেকে কে পাঠিয়েছে তা বুঝতে পারছিলেন না তিনি। বি'ষয়টি তিনি সঙ্গে সঙ্গে তার পরিচিতদের জানান।

এক পর্যায়ে শরীয়তপুর জে’লার জাজিরা উপজে’লার আহাম্ম'দ মাঝিরকান্দি পাইনপাড়া গ্রামের আ. জব্বার মোস্তাকের ছেলে বিল্লাল হোসেন ওই টাকা তার বলে দাবি করেন।

মোবাইল ফোনে তিনি জানান, অন্য একটি নম্বরে টাকা পাঠাতে গিয়ে ভুলে নাহিদের 'বিকাশ নম্বরে চলে এসেছে। বিল্লালকে তার নিজের ও টাকার যথাযথ প্রমাণ দিয়ে ওই টাকা ফেরত নিয়ে যেতে বলেন নাহিদ। সে সঙ্গে অ’পেক্ষা করতে থাকেন আরো কেউ ওই টাকা দাবি করেন কিনা। কিন্তু অদ্যবধি বিল্লাল ছাড়া আর কেউ টাকার দাবিদার হননি।

সোমবার (২২ মার্চ) সকালে বিল্লাল পূর্বধলায় আসলে নাহিদ ৫০ হাজার টাকা ফেরত দেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন ওয়াহিদুজ্জামান তালুকদার আজাদ, মোহাম্ম'দ আলী জুয়েল, কেবিএম নোমান শাহরিয়ার, আব্দুল্লাহ আল মামুন, মোস্তাক আহমেদ, শাহজাহান মিয়া প্রমুখ।

টাকা ফেরত পেয়ে বিল্লাল হোসেন খুবই খুশি। তিনি বলেন, নাহিদের সততায় আমি মুগ্ধ। মুঠোফোনে ভুলে অল্প পরিমাণ টাকা রিচার্জ হলে অনুরোধ করেও সে টাকা ফেরত পাওয়া যায় না। সেখানে নাহিদ ৫০ হাজার টাকা ফেরত দিয়ে সততার দৃ'ষ্টান্ত স্থাপন করেছেন।